আইসিইউ মেলেনি, করোনায় ইউপি চেয়ারম্যানের মৃত্যু

প্রকাশিত: ৩:০০ পূর্বাহ্ণ, জুন ১১, ২০২০

করোনা (কোভিড-১৯) উপসর্গে মারা গেছেন মাদারীপুরের শিবচর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও মুক্তিযোদ্ধা সামসুদ্দিন খান। বিগত কয়েকদিন ধরে জ্বর ও শ্বাসকষ্টে ছিলো তার।মঙ্গলবার (৯ জুন) রাজধানীর আনোয়ার খান মডার্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিলো তাকে।

কিন্তু পাওয়া যায়নি নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র বা আইসিইউ। পরে বুধবার (১০ জুন) বিকালে ইউনিভার্সেল মেডিকেলে নেয়ার পথে মৃত্যুবরণ করেন।

শিবচর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডা. সেলিম জানান, সামসুদ্দিন খান করোনার সন্দেহভাজন রোগী ছিলেন। কিন্তু নমুনা নেয়া হয়েছে কিনা সেটা জানি না। মদারীপুরে তার নমুনা নেয়া হয়নি। ঢাকায় নমুনা দেয়া হয়েছে কিনা জানি না। দিলেও তার ফলাফল জানি না।

তিনি জানান, তার শ্বশুরও কয়েকদিন আগে মারা গেছেন। সেখানে তিনি ছিলেন। তারপর থেকে তার জ্বর হয়েছিলো। ওনার আগে থেকেই শ্বাসকষ্ট ছিলো। এগুলো নিয়ে দুই থেকে তিনদিন আগে ঢাকায় গিয়েছিল কিন্তু সেখানে ভর্তি না হতে পেরে বাড়ি চলে আসেন।

এরপর মঙ্গলবার আনোয়ার খান মডার্নে ভর্তি হয়েছিলেন কিন্তু সেখানে আইসিইউ পাননি। পরে আজকে আরেক হাসপাতালে নেয়ার পথে তিনি মারা যান।

সামসুদ্দিন খানের ভাতিজা পলাশ বলেন, ঢাকা শহরে কোন চিকিৎসা পায়নি ভাই। আনোয়ার মডার্নে ভর্তি ছিল কিন্তু আইসিইউ পায়নি। আজকে মহাখালীর ইউনিভার্সেল মেডিকেলে যোগাযোগ করার পরে ওনারা বলেন নিয়ে আসেন। নিয়ে যাওয়ার পরে তারা দুইঘণ্টা অবর্জাবেশনে রাখছিলো অক্সিজেন ছাড়া। পরে সেখানেই মারা যান।

 

ভুলুয়া বাংলাদেশ/এএমএইচ