কবিরহাটে ১৫০ পরিবার বাস্তুহারা, পাশে দাঁড়ালেন শিউলী একরাম

কবিরহাটে ১৫০ পরিবার বাস্তুহারা, পাশে দাঁড়ালেন শিউলী একরাম

প্রকাশিত: ১১:৪২ অপরাহ্ণ, আগস্ট ৩০, ২০২০

বুরহান উদ্দিন (নোয়াখালী প্রতিনিধি): অপরিকল্পিত বাঁধ কাটায় নোয়াখালী জেলা কবিরহাট উপজেলা ধানশালিক ইউনিয়নে ১৫০টি ঘর বাড়ি বিলীন।

উপজেলা চেয়ারম্যান কামরুন নাহার শিউলি একরাম এসব আশ্রয়হীন মানুষদের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়ে পাশে দাঁড়িয়েছেন।

নোয়াখালী কবিরহাট উপজেলার ধানশালিক ইউনিয়নের মাঝে বয়ে যায় নোয়াখালী খাল এ চলতি বছর সরকার সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় খান সংস্কার করেন। পানির গতি কমানোর জন্য ধানশালিক ইউনিয়ন রিকশাওয়ালার দোকান খালের মাঝে বাঁধ নির্মাণ করে।

কিছুদিন পূর্বে সুইজগেট খোলার আগে স্থানীয় লোক বাঁধ খুলে দেয়।পানির প্রবাহে অতিরিক্ত গতি থাকায় রিকশা ওয়ালা ও গনুর দোকানের পার্শ্বের ১৫০ বাড়ি ও ১০০ একর ফসলি জমি বিলীন হয়ে যায়।

রবিবার (৩০ আগস্ট) সকাল ১১ ঘটিকায় কবিরহাট উপজেলা চেয়ারম্যান কামরুন নাহার শিউলি একরাম উপজেলা এসি ল্যান্ড মীর রাশেদুর জামান রাশেদ ও স্থানীয় চেয়ারম্যান ইয়াকুব নবী, নদীর পাড়ে অসহায় মানুষের কথা শুনেন, ব্রীজ ও খালের পাড়ের কাজ পরিদর্শন করেন।

উপজেলা চেয়ারম্যান সেখানে সশরীরে উপস্থিত হয়ে আশ্রয়হীন অসহায় মানুষের কথা শুনেন এবং বলেন, ঘর ও ভূমিহীন মানুষদের আমি সব ধরনের সহযোগিতা করব।

 

ভুলুয়াবিডি/এএইচ

নিউজটি শেয়ার করুন।