করোনার সাধারণ ছুটি ৩১ মে পর্যন্ত

প্রকাশিত: ৭:০৯ অপরাহ্ণ, মে ২৮, ২০২০

আসছে ‘৩১ মে’ পর আর থাকছে না করোনার সাধারণ ছুটি। শর্তসাপেক্ষে খুলে দেয়া হচ্ছে দূরপাল্লার বাস, রেল যোগাযোগ, দোকানপাট-ও হাট-বাজার।

এমন বেশ কিছু নির্দেশনাসহ আজ বৃহস্পতিবার ৩১ মে থেকে ১৫ জুন পর্যন্ত চলাচল সীমিত করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ২৫ মার্চ থেকে সরকার সাধারণ ছুটি ঘোষণা করে। পরে দেশজুড়ে চলে অঘষিত লকডাউন। বন্ধ হয়ে যায় সরকারি-বেসরকারি বেশিরভাগ অফিস-আদালত।

এ ছাড়াও বাস, ট্রেন ও লঞ্চসহ বন্ধ থাকে সব ধরনের যোগাযোগ। সব কিছু স্থবির হয়ে যাওয়ায় কর্মহীন হয়ে পড়ে নানা শ্রেণি-পেশার মানুষ।

এমন পরিস্থিতিতে দেশের অর্থনীতি ও সাধারণ মানুষের কথা চিন্তা করে ৩১ মে থেকে থাকছে না সাধারণ ছুটি। তবে, এক জেলা থেকে অন্য জেলায় চলাচল কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ করা হবে।

মাস্ক বা স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাচল না করলে শাস্তির কথাও উল্লেখ করা হয়েছে প্রজ্ঞাপনে। স্বল্প পরিসরে শুরু হচ্ছে উন্নয়নকাজ। যাতায়াতের জন্য স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত পরিসরে চালু থাকবে গণপরিবহন।

দোকানাপট-মার্কেট, হাট-বাজার খুললেও বিকাল ৪টার পর বন্ধ রাখতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চালু করা যাবে যাত্রীবাহী লঞ্চ, ট্রেন ও উড়োজাহাজ।

স্বাস্থ্যবিধি মেনে চালু করা যাবে সরকারি-বেসরকারি সব প্রতিষ্ঠান। তবে, বয়স্ক, অসুস্থ্ ও গর্ভবতীদের কাজে যোগ না দিতে বলা হয়েছে।

ভুলুয়া বাংলাদেশ/এএইচ