কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা সিপাই আমিনুলের বিরুদ্ধে ঘড়ি ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগ

প্রকাশিত: ৮:০৮ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৯, ২০২১

এসএম স্বপন (বেনাপোল) প্রতিনিধি: ভারত থেকে আসা দীপঙ্কর সাহা নামে এক ভারতীয় পাসপোর্ট যাত্রীর কাছ থেকে দুইটি হাত ঘড়ি ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে যশোরের বেনাপোল চেকপোস্টে কর্মরত কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা সিপাই আমিনুলের বিরুদ্ধে।

এ ঘটনায় পাসপোর্ট যাত্রী দীপঙ্কর সাহা সিপাই আমিনুলের বিরুদ্ধে বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) বেনাপোল কাস্টমস হাউজের কমিশনার আজিজুর রহমানের নিকট একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

বুধবার (১৭ নভেম্বর) বিকাল সাড়ে ৩ টার দিকে চেকপোস্ট ইমিগ্রেশনে এ ঘটনা ঘটে। ভারতীয় পাসপোর্ট যাত্রী দীপঙ্কর কলকাতার সরজপার্ক বারাসাতের বাসিন্দা। তার পাসপোর্ট নং-(ইউ-৮৪১৯৯৬২)।

পাসপোর্ট যাত্রী দীপঙ্কর জানান, আমি একজন ভারতীয় পাসপোর্ট যাত্রী। আমি ১৭ নভেম্বর বুধবার আনুমানিক বিকাল সাড়ে ৩ টার সময় সম্পূর্ণ বৈধভাবে, বৈধ ভিসায় ভারত-বাংলাদেশ এর কাস্টমস ইমিগ্রেশনের কার্যক্রম শেষ করে বাংলাদেশে প্রবেশ করি।

পরে বেনাপোল ইমিগ্রেশন এর বাইরে আমিনুল নামে একজন ব্যক্তি নিজেকে কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা পরিচয় দিয়ে, আমার ব্যাগ’সহ সমস্ত দেহ তল্লাশি করে। এ সময় আমার কাছে কিছু না পেয়ে, আমার পকেটে থাকা দুইটি হাত ঘড়ি তিনি ভয়ভীতি দেখিয়ে ছিনিয়ে নেন।

এরপর আমি অনেক অনুনয় বিনয় করার পরও আমার কথা শুনলেন না তিনি। আর আমার ঘড়ি দুইটিও ফিরিয়ে দিলেন না। পরে আমি বাইরে বেরিয়ে আসি।

তিনি আরও বলেন, এভাবে চলতে থাকলে দেশি-বিদেশি যেসব যাত্রী আছে, তাদের কাছে বাংলাদেশ সরকারের একটা বদনাম হয়ে যাবে।অনেকের কাছে অভিযোগ করে কোনও রকম উপায় না পেয়ে অবশেষে আমি বাধ্য হয়ে বেনাপোল কাস্টমস হাউজের কমিশনার বরাবর ১৮ ই নভেম্বর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বেনাপোল কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা সিপাই আমিনুল ইসলাম বলেন, আমার নাম আমিনুল না, আমিরুল ইসলাম। আমি দীপঙ্কর নামে কোনও যাত্রীর কাছ থেকে ঘড়ি ছিনিয়ে নেইনি।

আর যদি আমাদের কেউ নিয়ে থাকে, ওই যাত্রীকে নিয়ে আসেন, তার সাথে কথা বলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে ওই যাত্রী মিথ্যা অভিযোগ করেছেন বলে দাবি করেন তিনি।

 

 

ভুলুয়াবিডি/এএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন।