‘প্রমাণিত হলো আমরাও পারি’

প্রকাশিত: ৮:৫৯ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ১১, ২০২০

পদ্মা সেতুর মূল অবকাঠামো নির্মাণের ৫ বছর পূর্তির দুই দিন বাকি। এর আগে বৃহস্পতিবার (১০ ডিসেম্বর) বসলো সর্বশেষ ৪১তম স্প্যান। শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে মাওয়া প্রান্তে ১২ ও ১৩ নম্বর খুঁটির ওপর সর্বশেষ ৪১তম স্প্যানটি বসানোর কাজ শুরু হয়। আর তখন দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের পদ্মার তীরে অপেক্ষা।

অনেকে ট্রলার-স্পিডবোট নিয়ে নেমেছেন পদ্মা নদীতে। অনেকে সেতুর কাছাকাছি চরে অবস্থান করেছেন। সবাই স্বপ্নের পদ্মা সেতুর দুই প্রান্ত যুক্ত হওয়ার সেই দৃশ্য দেখার অপেক্ষায়। পদ্মাপাড়ের শিমুলিয়ার বাসিন্দা মোহাম্মদ রফিক হোসেন গিয়েছেন পদ্মা সেতুর শেষ স্প্যান বসানো দেখতে।

তিনি বলেছেন, আমরা নিজেরাও যে এতবড় একটা প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে পারি, এর প্রমাণ আজকে সবাই দেখতে পেলাম। সরকারকে অনেক ধন্যবাদ অনেক বড় একটি কাজ করেছে। দক্ষিণবঙ্গের কোটি কোটি মানুষের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করছে।

মোহাম্মদ রফিক হোসেন বলেছেন, শুধুমাত্র দক্ষিণবঙ্গ নয় বাংলাদেশের প্রতিটি অঞ্চলের মানুষের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করছে সরকার। পদ্মা সেতুর মতো বড় প্রকল্প আজ বাস্তবে রূপ নিলো এজন‌্য প্রধানমন্ত্রীকে ধন‌্যবাদ।’

তিনি বলেন, পদ্মা সেতু হওয়ায় দেশের দক্ষিণাঞ্চলের সঙ্গে যোগাযোগ ব্যবস্থা আরও আরও উন্নত হবে। ব্যবসা-বাণিজ্য, যাতায়াত সবক্ষেত্রেই দেশের জনগণ সুফল ভোগ করবে।

 

ভুলুয়াবিডি/এএইচ

নিউজটি শেয়ার করুন।